Home / মিডিয়া নিউজ / শুধু বউ না, যেকোনো ভালো চরিত্রেই আমি আগ্রহী: দীঘি

শুধু বউ না, যেকোনো ভালো চরিত্রেই আমি আগ্রহী: দীঘি

শিশুশিল্পী হিসেবে বড় পর্দায় পা রাখেন অভিনেত্রী প্রার্থনা ফারদিন দীঘি। বেশ কিছু সিনেমায় অভিনয়

করে প্রশংসা কুড়িয়েছেন তিনি। শিশুশিল্পী হিসেবে চলচ্চিত্রে অভিনয় করে তিনবার অর্জন করেন জাতীয়

চলচ্চিত্র পুরস্কার। তবে সেই দীঘি এখন আর শিশুশিল্পী নেই, দীর্ঘ বিরতি কাটিয়ে নায়িকা হিসেবে

চলচ্চিত্রে নাম লিখিয়েছেন। নায়িকা হিসেবে দিঘীর প্রথম চলচ্চিত্র ‘তুমি আছো তুমি নেই’। যদিও প্রথম চলচ্চিত্র দিয়ে দর্শকদের প্রত্যাশা মেটাতে ব্যর্থ হন তিনি। তবে বসে থাকেননি, কাজ করেছেন আরও বেশ কিছু চলচ্চিত্রে কিন্তু কিছুতেই যেন কিছু হচ্ছিলো না তাঁর।

চলচ্চিত্রের পর বেশ কিছু মিউজিক ভিডিওতেও কাজ করেছেন দিঘী। এবার ঈদে মুক্তি পাওয়া তার একটি মিউজিক ভিডিও বেশ সাড়া ফেলেছে। এদিকে নিজেকে জাহির করতে, নিজের কাজ যাচাইয়ের জন্য এবার দিঘী পা রেখেছেন ওটিটি মাধ্যমে। প্রথমবারের নতুন মাধ্যম ওটিটি প্ল্যাটফর্ম চরকিতে দেখা গিয়েছে প্রার্থনা ফারদিন দীঘিকে। সুমন ধর পরিচালিত ‘শেষ চিঠি’ মুক্তি পেয়েছে বৃহস্পতিবার (২ জুন) রাত ৮টায়।

দিঘীর প্রথম ওয়েব সিরিজ নিয়ে বেশ আশাবাদী ছিলেন এই অভিনেত্রীর ভক্তরা। সম্প্রতি চরকিতে প্রকাশ পাওয়া একটি ভিডিওতে দেখা যায় তাঁর ভক্তরা তাকে নিয়ে অনেক আশার কথা বলেছেন। সব কিছু মিলিয়ে নতুন এক চ্যালেঞ্জ সামনে এসে দাঁড়িয়ে ছিল দিঘীর। তবে মুক্তির পর যেন দেখা গেলো ভিন্ন এক দিঘীকে। সব চ্যালেঞ্জ নিয়ে নিজেকে ভেঙ্গে নতুন ভাবে দর্শদের সামনে হাজির হয়েছেন তিনি। তাঁর সাবলীল অভিনয় দিয়ে যেন শুভ সূচনা করলেন ওটিটিতে পথ চলার।

জানতে চাইলে দীঘি বলেন, নতুন কাজ নিয়ে দর্শকের সামনে আসা মানেইতো নতুন পরীক্ষা। দর্শক কীভাবে কাজটি নেবেন, তাঁদের ভালো লাগবে কিনা, এসব নিয়েই টেনশন। এর ওপর ওটিটিতে আমার প্রথম কাজ, এই নিয়ে ভীষণ চিন্তা ছিল।

ওয়েব ছবিটি প্রকাশের পর কেমন লাগছে? তিনি বলেন, প্রথম ওয়েব ছবি বলেই টেনশনে ছিলাম। সেই টেনশন কেটে গেছে দর্শক সাড়া পাওয়ায়। অনেকেই কাজটি দেখে সমাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লিখেছেন, আমাকে ভালো লাগার বিষয়টি জানাচ্ছেন। কেউ কেউ কোথায় ভুল হয়েছে সেটাও ধরিয়ে দিয়েছেন। কাজটি নিয়ে এত মানুষের আগ্রহ দেখে আমারও প্রত্যাশা বেড়ে গেছে। সব মিলিয়ে এখন আমি খুশি। খুবই খুশি।

আপনার প্রথম ছবিটিতে নায়কের বউয়ের চরিত্র, এই ওয়েব ছবিতেও বউয়ের চরিত্রে অভিনয় করেছেন… দীঘি বলেন, এটা কাকতালীয় বলতে পারেন। শেষ চিঠিতে একটি মেয়ের বিয়ের পর স্বামীর সঙ্গে তাঁর যে ধরনের সম্পর্ক, জটিলতা, সংগ্রাম দেখা দেয় তা দেখানো হয়েছে। নির্মাতা সুমন ধর গল্পটি বলার পরই মনে হয়েছে এখানে আমার অভিনয় করার জায়গা রয়েছে, তাই করেছি। তবে শুধু বউ না, গল্পের প্রয়োজনে যে কোনো ভালো চরিত্রে অভিনয় করতে আগ্রহী আমি।

Check Also

‘আমার বিশ্বাস, পরীমনি চাইলে একদিন শাবানা হতে পারবে’

দেশের অন্যতম জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা পরীমনি। আবেদনময়ী এই নায়িকার মধ্যে বাংলা চলচ্চিত্রের জীবন্ত কিংবদন্তি শাবানাকে খুঁজে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.