Home / মিডিয়া নিউজ / জনপ্রিয় মুখ চিত্রনায়ক আমিন খানের শৈশব ও গ্রামের গল্প

জনপ্রিয় মুখ চিত্রনায়ক আমিন খানের শৈশব ও গ্রামের গল্প

চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় মুখ চিত্রনায়ক আমিন খান। তার পুরো নাম আমিনুল ইসলাম খান। গ্রামের বাড়ি

সাতক্ষীরা জেলার কালিগজ্ঞ উপজেলার মৌতলায়। ১৯৭২ সালের ২৪ ডিসেম্বর জন্মগ্রহণ করেন এই অভিনেতা।

নব্বইয়ের দশকে এফডিসির ‘নতুন মুখের সন্ধানে’ প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্র জগতে প্রবেশ ঘটে তার।

আমিন খানের চাচাতো ভাই তুহিন খান। ঢাকার একটি মোবাইল কোম্পানিতে আইটি বিভাগে চাকরি করেন।

বর্তমানে ছুটিতে বয়েছেন গ্রামের বাড়ি সাতক্ষীরার কালিগজ্ঞের মৌতলা গ্রামে। আলাপ হয় আমিন খানের এই চাচাতো ভাইয়ের। তিনি জানান, আমিন খান ছোট বেলা থেকেই খুব শান্ত প্রকৃতির ছিলেন। অভিনয়ের দিকে ছোটবেলা থেকেেই ঝোঁক ছিলো তার। মৌতলা হাইস্কুলে ৯ম শ্রেণি পর্যন্ত লেখাপড়া করে এরপর খুলনা আইডিয়াল কলেজ থেকে এইচএসসি পরীক্ষায় উর্ত্তীণ হন। তাপর চলে যান ঢাকাতে।

আমিন খানের বাবা আলহাজ্ব খান লোকমান হোসেন খুলনার শিপওয়ার্ডে চাকরি করতেন। বর্তমানে মা-বাবাসহ পরিবার নিয়ে থাকেন রাজধানীর উত্তরায়। পরিবারসহ বছরে দুইবার গ্রামের বাড়িতে বেড়াতে আসেন আমিন খান। প্রতিবেশিদের মধ্যে তখন আনন্দের বাঁধ ভাঙে।

তুহিন খান আরো জানান, বড় ভাই নুরুল্লা খান সবসময় আমিন খানকে চলচ্চিত্রে কাজ করার ব্যাপারে সহযোগিতা করতেন। অবশেষে নব্বইয়ের দশকে এফডিসির ‘নতুন মুখের সন্ধানে’ নামক একটি প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়ে চিত্রজগতে প্রবেশ করে আমিন খান। এরপর ১৯৯৩ সালে ‘অবুঝ দুটি মন’ সিনেমায় প্রথম নায়ক চরিত্রে অভিনয় করেন। আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে। একের পর এক সাফল্যে তিনি হয়েছেন নন্দিত।

তুহিন খান বলেন, ‘আমার চেয়ে বয়সে একটু বড় হলেও অনেকটা একসাথেই বেড়ে ওঠা। চিত্রজগতে প্রবেশের পর বড় চাচা আলহাজ্ব খান আব্দুল হামিদকে দেখেই পালাতেন আমিন খান। খুব ভয় পেতেন চাচাকে। তাছাড়া আমাদের পরিবারের সকলেই তাকে খুব মান্য করে চলেন। তবে বর্তমানে বিষয়টি স্বাভাবিক হলেও অনেকটা সময় লেগেছে এমন পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে।’

তিনি জানালেন, শ্যামনগরের ইকোটুরিজম সেন্টার কর্তৃপক্ষের আমন্ত্রণে জানুয়ারি মাসের শেষের দিকে আমিন খান তার পরিবারসহ গ্রামের বাড়িতে আসবেন। এই নায়কের বড় ছেলে নয়ন খানের বয়স সাত বছর, ছোট ছেলে অয়ন খানের বয়স পাঁচ বছর।

যার ভয়ে পালাতেন আমিন খান সেই বড় চাচা খান আব্দুল হামিদ বলেন, ‘আমিন খান আমাদের সকলেরই স্নেহের। প্রথম দিকে আমি বিষয়টি মেনে নিতে না পারলেও পরবর্তীতে মেনে নিয়েছি। ও পড়াশোনায় খুব মেধাবী ছিলো।’

জনপ্রিয় এই অভিনেতাকে নিয়ে সাতক্ষীরাবাসী গর্ব করেন। তবে দুঃখের বিষয় সাতক্ষীরার অধিকাংশ মানুষই জানেন না আমিন খানের বাড়ি সাতক্ষীরাতে।-জাগো নিউজ

Check Also

বুবলীকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না?

শাকিব খানের সঙ্গে জুটি বেঁধে অভিনয় করে প্রশংসিত হয়েছেন চিত্রনায়িকা শবনম বুবলী। এই জুটির বক্স …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *